ইভিএম দিয়ে কখনোই সুষ্ঠু ভোট সম্ভব নয়, কারণ এটি দিয়ে একটি পক্ষকে জেতানো সম্ভব : সুজন সম্পাদক

বিরোধী দল বিএনপি নির্দলীয় সরকারসহ বিভিন্ন দাবিতে আওয়ামীলীগ সরকারের বিরুদ্ধে লড়াই সংগ্রাম করছে। বিএনপির দাবি সরকার জোর করে ক্ষমতা দখল করে ভোট ব্যবস্থা ধ্বং/স করে নিজেদের ক্ষমতা থাকার পথ সুগম করছে। বিগত দুটি নির্বাচন নিয়ে ব্যাপক বিতর্ক রয়েছে রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যে। অথচ সরকারের এসব বিষয় নিয়ে কোনো মাথা ব্যাথা নেই। তারা আবার ক্ষমতায় আসার জন্য দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন করতে চায়। ইভিএমে নির্বাচন নিয়ে মন্তব্য করে যা বললেন সুজন সম্পাদক বদিউল আলম মজুমদার।

ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) সমস্যা নয়। এটা শুধু একটি যন্ত্র। এর পেছনে যারা কাজ করে তাদেরই সমস্যা। সিটিজেন ফর গুড গভর্নেন্স (সুজন) সম্পাদক বদিউল আলম মজুমদার বলেন, এটা অনেকটা বেড়ায় ক্ষেত খাওয়ার মতো।

সোমবার (১৯ ডিসেম্বর) বিকেলে রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বী মেয়র প্রার্থীদের নিয়ে জ/নসাধারণের মুখোমুখি অনুষ্ঠান শেষে তিনি এ মন্তব্য করেন।

ইভিএম শুধুমাত্র ফলাফল দেয় দাবি করে বদিউল আলম বলেন, ‘এটি একটি মেশিন, এটিতে যা ইনপুট দেওয়া হবে তার ফলাফল প্রদর্শন করবে। কিন্তু এর পেছনে যারা আছে তারাই দুষ্কর্মগুলো করে। আমরা মনে করি ইভিএম দিয়ে কখনোই সুষ্ঠু ভোট সম্ভব নয়।

সুজন সম্পাদক আরও বলেন, ইভিএম এমন একটি হাতিয়ার যার মাধ্যমে যেকোনো পক্ষপাতমূলক কর্মকাণ্ড করা যায় এবং আমরা সব সময়ই ইভিএমের বিপক্ষে। কারণ, এটি দিয়ে একটি পক্ষকে জেতানো সম্ভব।

সুজন নিরপেক্ষ নয়, একটি গ্রুপের হয়ে কাজ করে এমন প্রশ্নের জবাবে বদিউল আলম বলেন, সরকারে যারা আছেন তারাই এক সময় আমাদের প্রশংসা করেছেন।তিনি বলেন, সুজন একটি ভালো সংগঠন, আমরা একটি নিরপেক্ষ প্রতিষ্ঠান।কিন্তু আমরা যখন তাদের বিরুদ্ধে নানা ধরনের দু/র্নীতি ও অনিয়মের সুস্পষ্ট অভিযোগ তুলেছি তখন তারা আমাদের বিরুদ্ধে চলে গেছে।আসলে এটা আমাদের দেশের সংস্কৃতিতে পরিণত হয়েছে।আমরা আমাদের দুর্বলতা প্রকাশ করতে চাই না। আমাদের দুর্বলতা অন্যের উপর চাপিয়ে দেই। আমরা কোন দলের জন্য নই, আমরা জনগণের জন্য, আমরা ভোটারদের জন্য।

রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচন সুষ্ঠু হবে কি হবে না এ বিষয়ে তিনি বলেন, আমি জ্যোতিষী নই, এই প্রশ্নের উত্তর দিতে হলে আমাকে জ্যোতিষী হতে হবে। মানুষ এখানে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ ভোট চায়। যারা নির্বাচন কমিশনের দায়িত্বে আছেন। আমরা আশা করি তারা নিরপেক্ষ ও সঠিকভাবে তাদের দায়িত্ব পালন করবেন।

রংপুর মহানগর সুজনের সভাপতি অধ্যক্ষ ফখরুল আনাম বেঞ্জুর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে রংপুর বিভাগীয় সমন্বয়ক রাজেশ দে রাজু, রংপুর মহানগরের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট খায়রুল ইসলাম বাপ্পী, মোখলেছুর রহমানসহ রাসিকের ভোটে অংশ নেওয়া ৯ মেয়র প্রার্থী উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে হলে দরকার দলীয় হস্তক্ষেপ না করা মন্তব্য করেন সুজন সম্পাদক বদিউল আলম মজুমদার। তিনি বলেন, সরকারের হস্তক্ষেপ থাকলে নির্বাচন সম্ভব নয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *