গোপন বিয়ের প্রকাশ্যের পর এবার ভিন্ন পোশাকে হাজির হলেন অভিনেত্রী, পড়েছে বিপাকে

হঠাৎ করেই গোপন বিয়ের বিষয়টি প্রকাশ্যে এনে ফের নতুন করে আলোচনায় বলিউডে আলোচিত অভিনেত্রী রাখি সাওয়ান্ত। বিষয়টি প্রকাশ হওয়ার পর থেকেই ছয় বছরের ছোট স্বামী প্রেমিক আদিলকে বেশ আলোচনার মুখে অভিনেত্রী। যদিও স্বামীর পরিবার থেকে মেনে নেওয়ার বিষয়টি স্পষ্ট করেনি অভিনেত্রী তবে সব ঠিকঠাক হয়ে যাবে বলেন জানান তিনি। তবে এবার ভিন্ন পোশাকে অভিনেত্রী রাখি সাওয়ান্তকে দেখায় নতুন প্রশ্ন উঠেছে।

বলিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী ও আইটেম গার্ল রাখি সাওয়ান্ত। মাঝেমধ্যেই নানা বিষয় নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় হাজির হন এই অভিনেত্রী। তবে অভিনয়ের চেয়ে ব্যক্তিগত জীবন নিয়েই বেশি কথা বলেন তিনি। এবার হিজাবি ছবি পোস্ট করে শিরোনাম হয়েছেন তিনি।

গত বছর প্রেমিক আদিল দুররানির সঙ্গে আ/ইনিভাবে বিয়ে করেন রাখি। আর এই খবর প্রকাশ্যে আসার পর থেকেই শুরু হয়েছে নানা আলোচনা-সমালোচনা।

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন রাখি। তার শেয়ার করা ভিডিওতে অভিনেত্রীকে লাল হিজাব পরা অবস্থায় দেখা গেছে। তিনি ভিডিওতে আদিলের সাথে কাটানো মুহুর্তের কিছু ফুটেজ এবং নিজের কিছু ছোট ক্লিপিংসও যোগ করেছেন। এমনকি নিজের দুঃখময় জীবনের কথাও তুলে ধরেছেন এই অভিনেত্রী।

সেই ভিডিওর মাধ্যমে অভিনেত্রী সবাইকে বোঝাতে চান তিনিও মানুষ, তিনিও কষ্ট পান। আদিলকে বিয়ে করার জন্য রাখিও তার ধর্ম ও নাম পরিবর্তন করেছিলেন। কিন্তু এত কিছুর পরও আদিলের সঙ্গে বিবাহিত জীবন কাটাতে পারছেন না তিনি।

শোনা যাচ্ছে, আদিল এখনও তাদের বিয়ে মেনে নেননি। আর রাখি খুবই বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পড়েছেন। যদিও আদিলের পরিবার তাকে মেনে নিতে রাজি হয়নি। তাই বাড়ির লোকজনকে বোঝানোর চেষ্টা করছেন অভিনেত্রীর স্বামী।

রাখি বরাবরই প্রেম এবং বিয়ে নিয়ে জটিলতার সম্মুখীন হয়েছেন। যদিও অভিনেত্রী তার জীবনে বহুবার প্রেম করেছেন, তবে বেশিরভাগ সময়ই সেই সম্পর্কগুলি স্থায়ী হয়নি। আদিলের আগে ব্যবসায়ী রিতেশকে বিয়ে করেছিলেন রাখি। কিন্তু রিয়েলিটি শো ‘বিগ বস’ শেষ হওয়ার পর তাদের ডিভোর্স হয়ে যায়।

প্রসঙ্গত, স্বামী আদিলের সঙ্গে সংসার করার জন্য নিজেকে পরিবর্তন করেও টানাপোড়েন চলচ্ছে তাদের মধ্যে এমটায় প্রকাশ করেছেন অভিনেত্রী রাখি। তবে নিজের পরিবর্তন প্রকাশ করে বিষয়টি বোঝাতে চেয়েছে তেমনটায় ধারনা করা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *