হঠাৎ মা গৌরি খান সম্পর্কে অজনা তথ্য দিলেন সুয়ানা, মুহূর্তেই নেটদুনিয়ায় ভাইরাল

বলিউডের অভিনেতাদের ব্যক্তিগত জীবন থেকে শুরু করে পরিবারসহ সকল বিষয়ে কৌতুহলের শেষ নেই ভক্ত ও দর্শকদের। অভিনেতাদের স্ত্রী সন্তানসহ সকলের জীবন চিত্র ফ্যাসান সকল বিষয় জানার জন্য যেন উৎসুক হয়ে থাকে সকল মানুষ। বলিউড বাদশা খ্যা/ত অভিনেতা শাহরুখ খান। তার স্ত্রী গৌরী খান ও মেয়ে সুহানা খানের বিষয়ে সম্পর্কে প্রায় গণমাধ্যমে গুলোতে লেখা হয়ে থাকে। এবার মা গৌরী খান সম্পর্কে যে কথা জানালেন মেয়ে সুহানা খান।

বলিউডের গ্ল্যামার জগতে তারকাদের অভিনয় দক্ষতা থেকে শুরু করে তাদের ব্যক্তিগত জীবন, সবকিছুই নেটিজেনদের মনোযোগের কেন্দ্রবিন্দু হয়ে ওঠে। বিশেষ করে তারকাদের ভিন্ন ফ্যাশন সেন্স বা তাদের পরিবারের সদস্যদের বিভিন্ন অজানা কথা মাঝেমধ্যেই ভাইরাল হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়।

আসলে, তারকাদের কিছুই নেটিজেনদের নজর এড়ায়নি। এই বলি টাউনের একজন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ এবং প্রভাবশালী অভিনেতা হলেন শাহরুখ খান। মাঝে মাঝে চর্চার কেন্দ্রে আসেন শাহরুখ খানের স্ত্রী গৌরী খান ও মেয়ে সুহানা খান।

সম্প্রতি ইন্টারনেটে ভা/ইরাল হচ্ছে কফি উইথ করণ অনুষ্ঠানের একটি পর্বের ট্রেলার, যেখানে শাহরুখের স্ত্রী গৌরী খান এবং মেয়ে সুহানা খান একসঙ্গে উপস্থিত ছিলেন। আমরা আপনাকে জানিয়ে রাখি যে গৌরী খান প্রায় ১৭ বছর পর আবার কফি উইথ করণ শোতে হাজির হয়েছেন। কিন্তু সেখানে সুহানা খান তার মাকে নিয়ে এমন কিছু মন্তব্য করেছেন যা আপনাকেও অবাক করবে। সেদিন কিছুই ফাঁস হয়েছে অজানা কথা। সুহানা খান তার মা সম্পর্কে ঠিক কী বলেছিলেন তা জানতে এই সম্পূর্ণ প্রতিবেদনটি পড়ুন।

আসলে, সুহানা খান প্রকাশ করেছেন যে তার মা গৌরী খান বাইরে বেড়াতে গেলে মুখে কু/লুপ এঁটে দেন। আমি নিশ্চিত এটা বিশ্বাস হয়নি। . সুহানা খান নিজেই বলেছিলেন যে তার মা যখন লন্ডনে গিয়েছিলেন, কেউ তাকে রাস্তা খুঁ/জার জন্য প্রশ্ন ক/রলেও তিনি মুখ বন্ধ রেখেছিলেন। আসলে গৌরী খান ভ্রমণের সময় কিছুটা চুপচাপ এবং শান্তি পছন্দ করেন। তবে বাকি সময়ে শাহরুখ জয়া সুহানা খান বেশ শান্ত। বিষয়টি জানাজানি হতেই ইন্টারনেট দুনিয়ায় তোলপাড় শুরু হয়।

প্রসঙ্গত, মায়ের ব্যক্তিগত বিষয় ফাঁস করায় অনেকে হতবাক হয়েছে ভক্তরা এমনটা জানা যায়। ভক্তরা সব সময় প্রিয় ব্যক্তির নানা বিষয় জানতে আগ্রহি থাকে এটা নতুন বিষয় নয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *